1. admin@lalmonirhatsongbad.com : admin :
মঙ্গলবার, ০৪ অক্টোবর ২০২২, ০১:২৩ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
হাতীবান্ধা গোতামারী ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যেগে সামাজিক- সম্প্রীতি কমিটির সভা অনুষ্ঠিত হয়। অসত্যের কাছে নাহি হবে নত শির ভয়ে কাঁপে কাঁপে পুরুষ লড়ে যায় বীর সমাজকল্যাণ মন্ত্রী হাতীবান্ধা দইখাওয়ায় ছাগলের খাবার যোগাতে বিদ্যুৎ স্পৃষ্টে প্রাণ গেলো যুবকের ইউপি চেয়ারম্যানের সুস্থতা কামনায় দোয়া-মিলাদ ফেসবুকে স্ট্যার্টাস হাতীবান্ধায় বাবা-ছেলের মাথা ফাটিয়ে দিয়েছেন আওয়ামীলীগ নেতা হাতীবান্ধায় ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচার ও ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে মানববন্ধন হাতীবান্ধায় বিয়ের দাবীতে ভাতিজার ঘরে চাচি হাতীবান্ধার সিংঙ্গীমারীতে ফেনসিডিল-১২০ বোতলসহ মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার হাতীবান্ধায় ক্ষমতার জোরে বাঁশঝাড় উজাড় সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

হাতীবান্ধা ৩ সন্তান প্রসবকারী মা মারা গেছেন হতাশায় তার পরিবার।

  • আপডেট সময়: সোমবার, ৭ জুন, ২০২১
  • ৫৩৩ বার পঠিত

লালমনিরহাট প্রতিনিধি 

হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ইউনিয়নের মধ্য গড্ডিমারী গ্রামের ৭নং ওয়ার্ড সাফিউল ইসলামের স্ত্রী শাপলা বেগম গতবছর একসাথে তিন সন্তান প্রসব করেন। ৪ জুন শনিবার তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

এদের একজন মেয়ে এবং দুজন ছেলে সন্তান। এছাড়াও তাদের ঘরে ৪ বছর বয়সী আরেক কন্যা সন্তান আছে।

তাদের পরিবার থেকে জানা যায় এক সাথে তিন সন্তান প্রসবের পর শাপলা বেগম মাতৃত্ব জনিত রোগ ও হার্টের সমস্যায় ভুগতে থাকেন।

অবশেষে তার নাড়ী ছেড়া চার সন্তান শাম্মী, সাথী, সাইদ ও আব্দুল্লাহ কে রেখে গতকাল এই দুনিয়া থেকে চিরবিদায় নেন এই মা।

বাড়িতে গিয়ে এই অবুঝ বাচ্চাদের দেখে মনটা ভীষন খারাপ হয়ে গেল। যারা কেউ বুঝতে পারছে না কোথায় গেছে তাদের মা।

আর যে কখনও ফিরবে না তাদের মা, আর যে কখনো কোলে নিয়ে চুমু খাবে না, আদর করবে না! তাদের খাইয়ে দিবে না, গোসল করায়ে দিবে না! কোথায় পাবে মায়ের ভালোবাসা!!?

ভিটেমাটি ছাড়া আর কিছু নেই সাফিউলের, সংসার চালাতে তাই ঢাকায় রাজমিস্ত্রির কাজ করে সে।

ফলে সবসময় বাড়ি ছেড়ে তাকে ঢাকায় থাকতে হয়। তাই এই চার নাতি নাতনিকে নিয়ে বিপাকে পরেছেন তাদের দাদি।

তিনি কেঁদে কেঁদে বলেন এক সাথে তিন বাচ্চা জন্মের পর সাংবাদিক সহ উপজেলা নির্বাহী অফিসার সামিউল আমিন, উপজেলা ভূমি কমিশনার,গড্ডিমারী ইউনিয়নের প্রয়াত চেয়ারম্যান ডাঃ আতিয়ার রহমান দেখতে এসে তাৎক্ষণিক কিছু সাহায্যে সহযোগীতা করেন,কিন্তু এর পর অনেককেই ছবি তুলতে আসলেও তাদের মা মারা যাওয়ার পর কেউ বাচ্চাদের খবর নিল না!

গড্ডিমারী ইউরিয়নের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ আবু বক্কর সিদ্দিক শ্যামল তিনি ঢাকায় অবস্হান করায়,প্যানেল চেয়ারম্যান আব্দুল আজিজ মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

সাফিউলের বাবা বলেন আমার যা ছিল,য় ঋন করে হলেও বউমার চিকিৎসা করি, কিন্তু তাকে বাঁচাতেও পারলাম না এখন হতাশায় আছি কিভাবে এই বাচ্চাদের লালন পালন করব তাই আমি ইউনিয়ন পরিষদ,উপজেলা প্রশাসনের সুদৃষ্টি কামনা করি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরও খবর
© স্বত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ লালমনিরহাট সংবাদ
Theme Customized By Shakil IT Park